মৌলবাদী গোষ্ঠীকে একেবারে নির্মূল করে দিতে হবে : যুবলীগ চেয়ারম্যান


জাগো প্রহরী :
দেশে মূর্তি ও ভাস্কর্য ইস্যুতে ইসলামপন্থী ও ভাস্কর্যপন্থীদের মধ্যে চলমান বিরোধের পরিস্থিতিতে একের পর আক্রমণাত্মক বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছেন এক শ্রেণির রাজনীতিবিদরা। এবার যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস্ পরশ হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছেন- ‘আর কোনো আপস নয়, ধরলেই ফাইনাল। মৌলবাদী গোষ্ঠীকে একেবারে নির্মূল করে দিতে হবে।’

আজ মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) বিকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) দোয়েল চত্বরে এক মানববন্ধনে যুবলীগ চেয়ারম্যান এ হুশিয়ারি দেন।

যুবলীগ চেয়ারম্যান বলেন, টাকা উৎস কী, কী তাদের এজেন্ডা- এসব ব্যাপারে প্রশাসনিক তদন্ত করতে হবে। প্রশাসনের তদন্তের মাধ্যমে আসল ষড়যন্ত্রকারী ও তাদের মদদদাতাদের চিহ্নিত করতে হবে এবং এই দেশের মাটিতেই তাদের শাস্তি দিতে হবে। মৌলবাদী গোষ্ঠী একেবারে নির্মূল করে দিতে হবে। তারা যেন বারবার আমাদের স্বাধীনতা-মুক্তিযুদ্ধের চেতনা-দেশপ্রেমকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে না পারে।

শেখ ফজলুল হক মনির ছেলে শেখ ফজলে শামস্ পরশ আরও বলেন, এবারই আমরা এটা ফাইনাল করব। প্রশাসনকে আহ্বান করছি, তদন্তের মাধ্যমে এদের (মৌলবাদী ও সাম্প্রদায়িক শক্তি) চিহ্নিত করুন। আমরা মাঠে আছি দেখে নেব তাদের। চোরের দশ দিন, গেরস্তের এক দিন। আমরা এবার তাদের দেখে নেব।

এ সময় নেতাকর্মীদের সজাগ ও সোচ্চার থাকার আহ্বান জানান ঢাকা সিটি দক্ষিণ কর্পোরেশনের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপসের ভাই এ যুবলীগ চেয়ারম্যান। তিনি বলেন- আমরা এদের দমন করব, ইনশাআল্লাহ।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য নির্মাণকে ইসলাম বিরোধী বলে বিরোধিতা করার পর থেকে দেশের শীর্ষস্থানীয় আলেমগণ ও ইসলামি শক্তির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ এবং ‘মৌলবাদ-সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে’ একাত্তরের ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটি, সেক্টর কমান্ডারস ফোরাম, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটসহ ৬৪টি সংগঠনের যৌথ কর্মসূচির অংশ হিসেবে মঙ্গলবার এই মানববন্ধন করে কেন্দ্রীয় যুবলীগ।

জাগো প্রহরী/এফআর

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য