বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণে অনুমতি নিতে হবে: ওবায়দুল কাদের


জাগো প্রহরী :
জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য নির্মাণে এখন থেকে ‘বঙ্গবন্ধু মেমোরিয়াল ট্রাস্টে’র অনুমতি নিতে হবে। মঙ্গলবার (৮ ডিসেম্বর) সচিবালয়ে এ সংক্রান্ত নির্দেশনা দিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, দেশের বিভিন্ন স্থানে অনেকেই বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণ করেন। সেটা তার প্রতি ভালোবাসা থেকে, শ্রদ্ধা থেকে। কিন্তু কিছু কিছু ভাস্কর্যের সঙ্গে বঙ্গবন্ধুর ছবির মিল থাকছে না। কখনও কখনও নকশা বা ডিজাইনেরও ত্রুটি দেখা যাচ্ছে। তাই বঙ্গবন্ধু ট্রাস্টের অনুমতি গ্রহণ ছাড়া ভাস্কর্য নির্মাণ করা থেকে বিরত থাকতে সবাইকে অনুরোধ জানাচ্ছি।

বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবার এবং মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে অতীতে অনেক ষড়যন্ত্র হয়েছে, এখনও হচ্ছে বলে দাবি করেন ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, ‘এখন হঠাৎ করে আবার বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নিয়ে দেশে অস্থিতিশীলতা তৈরির অপচেষ্টা চলছে। তবে তাদের জনস্বার্থে কঠোর হস্তে দমন করা হবে।’

তিনি আরও বলেন, বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের অবমাননা মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী কোটি বাঙালির হৃদয়ে আঘাত। এদেশের মুক্তিযুদ্ধ এবং অর্জনের প্রতি প্রতিক্রিয়াশীলদের চ্যালেঞ্জ। এর নেপথ্যে যারা মদদ এবং অর্থের যোগান দিচ্ছে তাদেরও খুঁজে বের করা হবে। লাখো শহীদের রক্তে অর্জিত এদেশে কোনও সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠীকে মাথা তুলে দাঁড়াতে দেয়া হবে না। ভাস্কর্য ইস্যুতে দেশি-বিদেশি রাজনৈতিক কোনও ষড়যন্ত্র আছে কিনা তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘উগ্র সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠী ধর্মকে ব্যবহার করে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরোধী কর্মকাণ্ড করছে। আর তাতে সমর্থন দিয়ে বিএনপি নিজেদের অবস্থান স্পষ্ট করেছে। যাতে প্রমাণ হয় বিএনপিই মুক্তিযুদ্ধবিরোধী বলয়ের পৃষ্ঠপোষক। জনগণকে সঙ্গে নিয়ে রাজনৈতিক ভাবে সব অপকৌশল মোকাবিলা করা হবে। তাই সবাইকে ঐকবদ্ধ থাকতে হবে।’

‘সরকার নির্বাচন কমিশনকে দলীয় সংস্থায় পরিণত করেছে’ বলে বিএনপি মহাসচিব যে অভিযোগ করেছেন, তার জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘তা ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যমূলক। আসলে বিএনপি জনগণ দ্বারা প্রত্যাখ্যাত হয়ে ব্যর্থতার দায় চাপাচ্ছে নির্বাচন কমিশনের ওপর। যারা ভোটের দিন কেন্দ্রে না যাওয়ার মধ্য দিয়ে নির্বাচন ব্যবস্থা ও নির্বাচন কমিশনকে প্রশ্নবিদ্ধ করে, তাদের এ অপপ্রয়াস জণগণের কাছে স্পষ্ট।’

জাগো প্রহরী/এফজে

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ