দলমত নির্বিশেষে জাতিকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে : মুফতি ফয়জুল্লাহ


জাগো প্রহরী : ইসলামী ঐক্যজোটের মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহ বলেছেন, সংকট মোকাবিলায় দলমত নির্বিশেষে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। সমাজের প্রতিটি অংশকেই মহামারীর ভয়াল থাবা থেকে পরিত্রাণের প্রচেষ্টার সঙ্গে একাত্ম হতে হবে। আমাদেরকে আল্লাহর কাছে নিঃশর্তভাবে আত্মসমর্পণ করা আবশ্যক। তিনি বলেন, সরকারি-বেসরকারি এবং দরকারি কাজে সমন্বয় ঘটাতে হবে। আগামীর চ্যালেঞ্জ ও সংকট উত্তরণে নির্ভুল সিদ্ধান্ত নেওয়ার চেষ্টা করতে হবে। গতকাল বুধবার (১জুলাই )এক সাক্ষাৎকারে  তিনি এ কথা বলেন।

 মুফতি ফয়জুল্লাহ বলেন, এই বিপর্যয়েও যারা ত্রাণ আত্মসাৎ করে তাদের প্রকাশ্যে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। ভয়াবহ বিপদ নেমে এসেছে মানবতা এবং দেশের ওপর। মানুষ বিশ্বাস করছে শুধু জাগতিক উপায় উপকরণ দিয়ে এই ভয়াবহ মহামারী থেকে পরিত্রাণ পাওয়া যাবে না। তাই মানুষ তওবা করছে। ইস্তেগফার করছে। আল্লাহমুখী হয়েছে। বিপুল সংখ্যক মানুষ স্বাস্থ্য নির্দেশনা মেনে চলছে। অর্থনৈতিক পরিস্থিতি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, কঠিন চ্যালেঞ্জের মুখে অর্থনীতি। নিম্ন মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষ কষ্টের মধ্যে আছে। ওদের ঘরে ঘরে খাবার পৌঁছে দিতে হবে। কেউ যেন ক্ষুধার্ত না থাকে তা নিশ্চিত করতে হবে। ভোটের সময় মানুষের ঘরে ঘরে ভোটার স্লিপ পৌঁছানো গেলে সরকারি অনুদান ঘরে ঘরে পৌঁছানো যাবে না কেন? 

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় প্রসঙ্গে তিনি বলেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন পর্যায়ের অনেকেরই দুর্বল নেতৃত্ব এবং অসংযত কথাবার্তা প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে। তারা উচ্চপর্যায়ের কাছে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে নিজেদের অজ্ঞতা ও অদক্ষতার কথা গোপন করে রেখেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। 

তিনি আরও বলেন, কিছু ব্যতিক্রম ছাড়া অধিকাংশ স্বাস্থ্যকর্মী ও চিকিৎসকরা সাহসী ভূমিকা রাখছেন। প্রশাসনকে সহায়তা করতে পুরোদমে দায়িত্ব পালন শুরু করেছে সশস্ত্র বাহিনীএতে জনমনে স্বস্তি নেমেছিল।

তিনি বলেন, করোনা পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে যেসব ব্যবসায়ী নিত্যপণ্যের দাম বাড়িয়েছেন তাদের প্রতিহত করতে হবে। সময় কম, কাজ বেশি, দায়ভার বিরাট। মানব সভ্যতা এবং দেশ বাঁচানোর জন্য সাহসী ভূমিকা রাখতে হবে। বিপদের এ চরম মুহূর্তে সামান্য দেরি হলে, ভুল হলে, ভুল করলে ভয়ানক বিপর্যয় নেমে আসতে পারে।

জাগো প্রহরী/এফআর

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য