কাশ্মির নিয়ে ভারতকে পাক সেনাপ্রধানের হুঁশিয়ারি


জাগো প্রহরী : পাকিস্তান সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া রোববার হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছেন যে, ‘অধিকৃত কাশ্মীরে ভারত কোন আগ্রাসন চালানোর চেষ্টা করলে তার জবাব পুরো সামরিক শক্তি দিয়ে দেয়া হবে।’

সেনাবাহিনী প্রধান পবিত্র ঈদ উল ফিতর কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণ রেখায় নিয়োজিত সৈন্যদের সাথে অতিবাহিত করেন। সেখানে অবস্থানরত সেনাদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রেখে তিনি বলেন, ‘কাশ্মীর একটি বিতর্কিত অঞ্চল এবং আগ্রাসনের সাথে সম্পর্কিত যে কোনও রাজনৈতিক ও সামরিক চিন্তাধারাসহ বিতর্কিত মর্যাদাকে চ্যালেঞ্জ করার যে কোনও প্রয়াস সম্পূর্ণরূপে জাতীয় সংকল্প ও সামরিক শক্তির সাথে সাড়া দেয়া হবে।’

স্বাধীনতাকামীদেরকে হত্যার মাধ্যমে ভারত সরকার কাশ্মিরী জনগণের মুক্তির সংগ্রামকে স্তব্ধ করতে পারবে না বলে জানিয়েছেন পাকিস্তানের সেনাপ্রধান। তিনি বলেছেন, এটি এমন কোনো বিষয় নয় যে তা সামরিক শাসন জারি ও হত্যার মাধ্যমে থামিয়ে দেয়া যাবে। তিনি আরো বলেন, কাশ্মীর একটি বিতর্কিত অঞ্চল ফলে কাশ্মির ইস্যুতে কাউকে একতরফা সিদ্ধান্ত গ্রহণের সুযোগ দেয়া হবে না।

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে ভয়াবহ পরিস্থিতি বিরাজ করছে দাবি করে তিনি বলেন, কাশ্মিরীদের দুরবস্থা থেকে বিশ্ববাসীর দৃষ্টিকে ভিন্ন দিকে ঘুরিয়ে দিতে ভারতীয় বাহিনী যৌথ সীমান্তে এবং আজাদ কাশ্মিরে অনবরত হামলা চালাচ্ছে।

গত আগস্টে ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু ও কাশ্মীরকে স্বায়ত্তশাসনের বিশেষ মর্যাদা দেয়া ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ ধারাটি বাতিল করে দেশটির সরকার। ভারতের প্রেসিডেন্ট রামনাথ কোবিন্দ এক প্রেসিডেন্সিয়াল অর্ডারের মাধ্যমে মুসলিম-অধ্যুষিত রাজ্যটির বিশেষ সুবিধা দেওয়া সাংবিধানিক আইনটি বাতিল করে দেন। এরপর থেকে দীর্ঘ দিন সেখানে কারফিউ জারি রাখা হয়। সূত্র: আনাদুলু এজেন্সি।

জাগো প্রহরী/ফাইয়াজ

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ