চলমান করোনা সংকটকালে দেশের যুবকদেরকে বেকার ভাতা দিতে হবে : ইসলামী যুব আন্দোলন


জাগো প্রহরী : লকডাউন চলাকালীন ৫০ লক্ষ বেকার যুবককে গত মার্চ মাস থেকে মাসিক ভাতা দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ইসলামী যুব আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি কে এম আতিকুর রহমান ও সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা মুহাম্মাদ নেছার উদ্দিন।

আজ সোমবার ( ৪ঠা মে ) এক যুক্ত বিবৃতিতে যুব নেতৃদ্বয় এই দাবি জানান।

নেতৃদ্বয় বলেন, পরিসংখ্যান ব্যুরোর সর্বশেষ জরিপ অনুযায়ী (জুলাই ২০১৯) দেশে বেকারের সংখ্যা ২৬ লাখ ৭৭ হাজার। যদিও বিশেষজ্ঞদের মতে কর্মহীন যুবকের সংখ্যা আরো অনেক বেশি। 

এসব যুবক যোগ্যতা থাকা সত্ত্বেও বিভিন্ন কারণে পরিবারের বোঝা হিসেবে বেকার জীবন যাপন করতে বাধ্য হয়। বিভিন্ন দপ্তরে চাকরি খোঁজার জন্য তারা বছরের পর বছর ব্যস্ত সময় পার করে। এ সময় তারা বাসা বাড়িতে প্রাইভেট টিউশনি অথবা পার্ট টাইম জব করে তাদের হাত খরচের অর্থ জোগাড় করেন। 
সরকারি সাধারণ ছুটি ও সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করার নির্দেশের কারণে তাদের এই ক্ষুদ্র আয়ের রাস্তা বন্ধ হওয়াতে এক দুঃসহ জীবনযাপন করতে বাধ্য হচ্ছে। ফলে একদিকে যেমন তারা হতাশা ও ডিপ্রেশনে ভুগে নিজেদের মেধা ও যৌবনকে ধুলিস্যাৎ করছে। অপরদিকে সমাজ বিরোধী অপকর্ম চুরি, ডাকাতি, ছিনতাই এবং মাদকাসক্তের মত অন্ধকার জীবনে জড়িয়ে যেতে বাধ্য হচ্ছে অনেকেই। ইদানিং মিডিয়াতে প্রকাশিত ছিনতাই ও ডাকাতির ঘটনা বৃদ্ধি এটারই বাস্তব প্রমাণ। 

এই অবস্থায় দেশের আগামীদিনের গুরুত্বপূর্ণ জনসম্পদ এই যুবসমাজকে যদি রক্ষা করা না যায় তাহলে দেশ ও জাতি ভবিষ্যতে নিশ্চিত অন্ধকারে নিমজ্জিত হতে বাধ্য। 

নেতৃদ্বয় বলেন, যুব কল্যাণ ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে দেশের বেকার যুবকদের তালিকা করে সরাসরি তাদের ব্যাংক একাউন্ট অথবা মোবাইল ব্যাংকিংয়ে বেকার ভাতা পাঠানো হোক। বেকার যুবকদেরকে সরকারি সহায়তা দিলে পরবর্তীতে এই যুব সমাজের কর্মদক্ষতায় ভবিষ্যতে তা অনেকগুণ বৃদ্ধি হয়ে ফেরত আসবে বলে আমাদের বিশ্বাস। 

তাই এ ব্যাপারে দ্রুত সিদ্ধান্ত নিয়ে কার্যকর করার জন্য যুব সমাজের পক্ষ থেকে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান শীর্ষ যুব নেতৃদ্বয় ।

জাগো প্রহরী/ফাইয়াজ

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য