সন্ধ্যার মধ্যে উপকূল অতিক্রম করতে পারে আম্ফান



জাগো প্রহরী : বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ভয়ঙ্কর সাইক্লোন আম্ফান আজ বুধবার ( ২০ মে ) সন্ধ্যার মধ্যেই উপকূলে আঘাত হেনে অতিক্রম করে যেতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। তবে ঝড়ের প্রভাব আরো বেশ কিছুটা সময় থাকবে। এতে দেশের উপকূলীয় ১৪ জেলায় অতিভারীবর্ষণসহ দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে বলে জানানো হয়েছে।

মোংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরসমূহকে ১০ (দশ) নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার সমুদ্র বন্দরকে ৯ (নয়) নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

আজ বুধবার দুপুরে আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে জানানো হয়, সন্ধ্যার মধ্যে আম্ফান উপকূলে অতিক্রম করতে পারে। এ সময়  সাতক্ষীরা, খুলনা, বাগেরহাট, ঝালকাঠি, পিরোজপুর, বরগুনা, পটুয়াখালী, ভোলা, বরিশাল, লক্ষ্মীপুর, চাঁদপুর, নোয়াখালী, ফেনী ও চট্টগ্রাম জেলাসমূহ এবং তাদের অদূরবর্তী দ্বীপ ও চরগুলোতে ভারী থেকে অতিভারী বর্ষণসহ দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে।

ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৮৫ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘন্টায় ২০০ কিলোমিটার; যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ২২০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের কাছে সাগর খুবই বিক্ষুব্ধ রয়েছে।

বঙ্গোপসাগরের অদূরবর্তী দ্বীপ ও চরসমূহের নিম্নাঞ্চল স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে ১০-১৫ ফুট বেশি উচ্চতার জলোচ্ছ্বাসে প্লাবিত হতে পারে বলে জানানো হয়েছে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে।

জাগো প্রহরী/গালিব

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ