ভোলায় মহানবী (সা.) কে কটূক্তির প্রতিবাদে আয়োজিত মানববন্ধনে পুলিশের বাঁধা



জাগো প্রহরী : ভোলার মনপুরায় মহানবী হযরত মুহাম্মদ সা. কে নিয়ে হিন্দু যুবকের ফেইজবুক শেয়ার নিয়ে প্রতিবাদ,হামলা,বিক্ষোভ,আহত ও গ্রেপ্তারের ঘটনায় ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্যপরিষদের পূর্ব নির্ধারিত মানববন্ধনটি আজ রবিবার ( ১৭ মে ) সকাল সাড়ে ১১ টার সময় ভোলা সদর রোডের কে-জাহান মার্কেটের সামনে থেকে শুরু করার সময় পুলিশের বাঁধার মুখে পন্ড হয়ে যায়। 

এ নিয়ে সংগঠনের নেতা কর্মী ও তাওহিদী জনতার মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে।


ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্যপরিষদের সাধারণ সম্পাদক মোবাশ্বের উল্লাহ নাঈম বলেন, আমরা শান্তিপূর্ণভাবে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মানববন্ধন করতে চেয়েছিলাম ৷ কিন্তু পুলিশ বিনা উস্কানীতে আমাদেরকে বাঁধা প্রদান করেছে। এবং আমাদের মানববন্ধনটি পন্ড করে দিয়েছে। আমরা আমাদের পরিষদের সাথে আলাপ আলোচনা করে পরবর্তী কর্মসূচির সিদ্ধান্ত নেব।


ভোলা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এনায়েত হোসেন বলেন, বর্তমান দেশের পরিস্থিতির উপর ভিত্তি করে কোনো রকম গণসমাবেশ,মিছিল, মিটিং নিষিদ্ধ করা হয়েছে। তাই তাদেরকে মানববন্ধন করতে দেয়া হয়নি। তাছাড়া মরপুরার ফেউজবুকে কটূক্তিকারী শ্রীরামের বিরুদ্ধে পুলিশ আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।

উল্লেখ্য, গত ১৫ মে শুক্রবার ভোলার মনপুরায় মহনবী (সাঃ) কে কটুক্তি করে ফেইজবুকে শেয়ার করার ঘটনার অভিযোগে শ্রীরাম চন্দ্র দাস (৩৫) নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

এদিকে ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাতের প্রতিবাদে শুক্রবার জুমার নামাজ শেষে বিক্ষোভ মিছিল করে মুসল্লিরা। এতে শ্রী রামের দুইটি দোকানঘর ভাঙ্গচুর করে তারা। পুলিশ ঘটনা নিয়ন্ত্রনে আনার জন্য রাবার বুলেট নিক্ষেপকালে ৫ জন মুসল্লি আহত হওয়ার ঘটনা ঘটেছিল।

জাগো প্রহরী/গালিব

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ